Petrol-Diesel: আজ ফের ঊর্ধ্বমুখী জ্বালানিমূল্য,পেট্রোলের পর এবার রাজ্যে সেঞ্চুরি হাঁকালো ডিজেল

 

Advertisement

যত দিন যাচ্ছে ততই লাগামছাড়া হচ্ছে পেট্রোপণ্যের মূল্য। প্রায় প্রতিদিনই ঊর্ধ্বমুখী হচ্ছে পেট্রোল ও ডিজেলের দাম। যার জেরে পকেটে টান ধরেছে আম জনতার।‌ পেট্রোলের পর এবার রাজ্যের বেশকিছু জেলাতে ১০০-র গন্ডি পেরোলো ডিজেল। গতকাল শুক্রবার পুরুলিয়ায় ডিজেল এর দাম বেড়ে দাঁড়ায় ১০০ টাকা ১৪ পয়সা। এর পাশাপাশি উত্তরবঙ্গের দার্জিলিং, আলিপুরদুয়ার ও কোচবিহারে ডিজেলের দাম বেড়ে দাঁড়িয়েছে একশোর দারগোড়ায়।

Advertisement

রাষ্ট্রয়াত্ব তেল সংস্থায় পাওয়া তথ্য অনুযায়ী আজ শুক্রবার লিটার পিছু পেট্রোল ও ডিজেলের দাম বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৩৫ পয়সা করে। এদিন কলকাতায় ৯৯ টাকার দারগোড়ায় পা রাখল ডিজেলের দাম। যা এখনো অব্দি সর্বোচ্চ দাম। পেট্রোলের দাম বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১০৭ টাকা ৭৮ পয়সা ও ডিজেল পাওয়া যাচ্ছে ৯৯ টাকা ০৮ পয়সা।

Advertisement

প্রতিদিন যেভাবে অগ্নিমূল্য হচ্ছে জ্বালানির দাম তাতে মনে হচ্ছে ডিজেলের সেঞ্চুরি হাঁকানো আর মাত্র কিছু সময়ের অপেক্ষা। কলকাতার পাশাপাশি জ্বালানির দাম অগ্নিমূল্য হয়েছে রাজধানী দিল্লি ও বাণিজ্য নগরী মুম্বাইতে ও চেন্নাইতেও। এদিন দিল্লিতে লিটার প্রতি পেট্রোল ও ডিজেল পাওয়া যাচ্ছে যথাক্রমে ১০৭ টাকা ২৪ পয়সা ও ৯৫ টাকা ৯৭ পয়সা।

Advertisement

মহারাষ্ট্রে জ্বালানির মূল্যের সংখ্যাটা ক্রমশ ভয় ধরানোর মতো। সেখানে এক লিটার পেট্রোল কিনতে খরচ করতে হচ্ছে ১১৩ টাকা ১২ পয়সা ও ডিজেল প্রতি ১০৪ টাকা। অন্যদিকে চেন্নাইতে এটার প্রতি পেট্রোলের দাম হয়েছে ১০৪ টাকা ২২ পয়সা ও ডিজেলের দাম ১০০ টাকা ২৫ পয়সা।

Advertisement

জ্বালানির মূল্য লাগাতার বৃদ্ধির ফলে পাল্লা দিয়ে বাড়ছে নিত্যপণ্যের দাম। মধ্যবিত্তের পকেটের সাথে সাথে হেসেলেও ধরেছে টান। এমন অবস্থায় সরকারকে কড়া ভাষায় আক্রমণ করছে বিরোধীরা। এ নিয়ে প্রাক্তন কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী বলেন,”মোদি সরকারের জ্বালানি লুঠে একটি নতুন শব্দ তৈরি হয়েছে। ফিলিয়নেয়ার। যাঁরা দেশে ট্যাঙ্ক ভরতি করে তেল ভরতে পারছেন,তাঁরাই ফিলিয়নেয়ার। কেন্দ্র সরকার আমজনতার সঙ্গে ঘৃণ্য রসিকতা করছে।”

Advertisement

Advertisement

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button