ফের ঊর্ধ্বমুখী জ্বালানির মূল্য,আজ কলকাতায় কত হলো পেট্রোল-ডিজেলের দাম?

একদিন বাদ দিয়ে ফের ঊর্ধ্বমুখী পেট্রোল ও ডিজেলের মূল্য। গতকাল শুক্রবার রাতে লিটার প্রতি পেট্রোল ও ডিজেলের মূল্য বাড়লো যথাক্রমে ৮৪ ও ৮০ পয়সা। এ নিয়ে গত ১২ দিনে প্রায় ১০ বার বাড়তে দেখা গেল দুই জ্বালানির দাম। গত ১২ দিনে দুই জ্বালানির দাম বেড়েছে মোট ৭ টাকা ২০ পয়সা। যার কারণে মাথায় হাত পড়েছে আম জনতার।

Advertisement

টানা ১২ দিন জ্বালানির মূল্যবৃদ্ধির পর আজ শনিবার কলকাতায় পেট্রোলের মূল্য দাঁড়িয়েছে ১১২ টাকা ১৯ পয়সা ও ডিজেল এর মূল্য দাঁড়িয়েছে ৯৭ টাকা ০২ পয়সা। পাশাপাশি রাজধানীতে দিল্লিতে প্রতি লিটার পেট্রোল বিক্রি হচ্ছে ১০২ টাকা ৬১ পয়সা ও ডিজেল বিক্রি হচ্ছে ৯৩ টাকা ৮৭ পয়সায়।

Advertisement

তবে মুম্বাইতে জ্বালানির দাম দেশে সর্বোচ্চ। সেখানে প্রতি লিটার পেট্রোলের দাম ১১৭ টাকা ৫৭ পয়সা ও ডিজেলের দাম ১০১ টাকা ৭৯ পয়সা। অন্যদিকে ভারতের আরো একটি মেট্রো সিটি চেন্নাইতে পেট্রোল ও ডিজেলের দাম রয়েছে একই সারিতে ১০৮.২১ টাকায়।

Advertisement

গতকাল ‘পেট্রোলিয়াম প্ল্যানিং এন্ড অ্যানালিসিস সেল’ নিজেদের একটি বিবৃতিতে জানিয়েছে যে,ONGC-র বেসিন এর মতো দেশের পুরোনো প্রাকৃতিক গ্যাস উত্তোলন প্রতিষ্ঠানগুলি থেকে উত্তোলিত গ্যাসের দাম ১০ লক্ষ ব্রিটিশ থার্মাল ইউনিট প্রতি ২.৯০ ডলার থেকে বেড়ে ৬.১০ ডলার হয়েছে এবং এই মূল্য আগামী ছয় মাসের জন্য ধার্য করা হয়েছে।

Advertisement

ফলে বিশেষজ্ঞদের মতে,এই মূল্যবৃদ্ধির প্রভাব বিদ্যুৎ সহ সার,রান্নার গ্যাস ও সিএনজি উভয়ের উপর পড়বে। ভারতের নতুন উত্তোলক প্রতিষ্ঠান অর্থাৎ রিলায়েন্স ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেডের ক্ষেত্রেও অনেকটাই বাড়তে দেখা গেল প্রাকৃতিক গ্যাসের দাম। এরপর পরবর্তী দাম নির্ধারিত হবে চলতি বছরের আগামী ১ লা অক্টোবর।

Advertisement

প্রসঙ্গত,চলতি রুশ এবং ইউক্রেনের যুদ্ধের কারণে আন্তর্জাতিক বাজারে অপরিশোধিত তেলের দামের মূল্যবৃদ্ধি আপাতত বন্ধ হয়েছে। কিন্তু তা সত্বেও ভারতীয় বাজারে পেট্রোল ও ডিজেলের দাম ঊর্ধ্বমুখী। চলতি সপ্তাহের গত বৃহস্পতিবার বিশ্ববাজারে অপরিশোধিত তেলের দাম ব্যারেল প্রতি ৫ ডলার কমতে দেখা গিয়েছে।

Advertisement

এদিকে রুশ বিদেশমন্ত্রী সের্গেই লাভারভ গতকাল দিল্লিতে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ও এস জয় শংকর এর সাথে একটি সাক্ষাৎ করেছেন। সেখানে তিনি জানান তারা ভারতকে আরও সস্তায় অপরিশোধিত তেল সরবরাহ করবেন। কিন্তু তা সত্ত্বেও কেন ভারতীয় বাজারে জ্বালানির মূল্যবৃদ্ধি ঠেকানো যাচ্ছে না এনিয়ে উঠছে প্রশ্ন।

Advertisement

Advertisement

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button